1. miahmohammadshuzan@gmail.com : Central News :
  2. centralnewsbd24@gmail.com : CNB BD : CNB BD
শিক্ষার্থীকে মারধরের অভিযোগে ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা | Central News BD
বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ০২:১৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
মিঠাপুকুরে কামরু প্রথমবার, পীরগঞ্জে মণ্ডলের হ্যাট্রিক ফিলিস্তিনে যুদ্ধ বিরতি কার্যকর দাবীতে রংপুরে ছাত্র-জনতার বিক্ষোভে পুলিশের বাঁধা রংপুরে আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের তিন সদস্যের সাজা প্রদান বড় চমক রেখে শক্তিশালী দল ঘোষণা আর্জেন্টিনার রংপুরে সামাজিক সম্প্রীতি ও নাগরিকত্ব বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত বেরোবিতে গাইবান্ধা জেলা সমিতির নেতৃত্বে মোশফিকুর-শাকিল নারীদের জীবনমান উন্নয়নে নীলফামারীর ডিমলায় মহিলা সমাবেশ এরশাদের সমাধিতে পুষ্পমাল্য দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন জিএম কাদের দ্বাদশ জাতীয় সংসদের বাজেট অধিবেশন ৫ জুন ক্রেতারা প্লট বা ফ্ল্যাট কিনে যেন হয়রানির শিকার না হয় : রিহ্যাবকে রাষ্ট্রপতি 

শিক্ষার্থীকে মারধরের অভিযোগে ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক, রংপুর
  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ১২ এপ্রিল, ২০২২
  • ৬০ জন সংবাদটি পড়েছেন

রংপুরের গঙ্গাচড়ায় টাকার বিনিময়ে টিসিবির কার্ড দেওয়ার প্রতিবাদকারী এক শিক্ষার্থীকে মারধরের ঘটনায় ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। সোমবার ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী নিজে বাদী হয়ে গঙ্গাচড়া মডেল থানায় মামলাটি দায়ের করেন।

অভিযুক্ত চেয়ারম্যানের নাম আবদুর রউফ (৪৫)। তিনি গঙ্গাচড়ার কোলকোন্দ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান। অভিযোগকারী শিক্ষার্থীর নাম ফরিদুল ইসলাম। তিনি রংপুর কারমাইকেল কলেজের স্নাতকের শিক্ষার্থী।

পুলিশ জানিয়েছে, মামলায় ইউপি চেয়ারম্যান ছাড়াও ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের সদস্য শরিফুল ইসলামসহ সাতজনকে আসামি করেছেন নির্যাতনের শিকার শিক্ষার্থী।

মামলার অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, প্রায় এক মাস আগে কোলকোন্দ ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের নির্দেশে টিসিবির ফ্যামিলি কার্ড দেওয়ার জন্য এলাকার দুস্থ ও গরিব পরিবারের সদস্যদের কাছ থেকে অবৈধভাবে ২০০ টাকা করে নেন।

এ ঘটনায় গত ২২মার্চ চেয়ারম্যান আবদুর রউফেরের বিরুদ্ধে দক্ষিণ কোলকোন্দ গ্রামের ফরিদুল ইসলামসহ ভুক্তভোগী চারজন জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) বরাবর লিখিত অভিযোগ দেন।

এতে ক্ষুব্ধ হয়ে চেয়ারম্যান ও অভিযুক্ত আসামিরা বিভিন্ন সময়ে কলেজশিক্ষার্থী ফরিদুল ইসলামকে ভয়ভীতি ও হুমকি-ধমকি দিতে থাকেন।

ওই অভিযোগের ঘটনায় জেলা প্রশাসকের নির্দেশে গঠিত তদন্ত কমিটি গত বৃহস্পতিবার ৭ এপ্রিল বিকেলে ইউপি কার্যালয়ে গিয়ে ঘটনার তদন্ত করেন। এ সময় তদন্তকারী দলের সদস্যরা অভিযোগকারী ফরিদুলকে ডেকে ঘটনার বিষয়ে লিখিত সাক্ষ্য নিয়ে চলে যান।

আরও পড়ুন:

রংপুরজুড়ে বিএসটিআইর অভিযান ও জরিমানা

 

তদন্ত কমিটি চলে যাবার পর চেয়ারম্যান আবদুর রউফের নির্দেশে তাঁর অনুসারীরা ফরিদুল ইসলামের ওপর হামলা চালান। একপর্যায়ে ফরিদুলকে টেনেহিঁচড়ে স্থানীয় পীরেরহাট বাজারে চেয়ারম্যানের ব্যক্তিগত কার্যালয়ে নিয়ে মারধর করে। ঘটনাটি জানতে পেরে গঙ্গাচড়া মডেল থানা পুলিশ আহত ফরিদুলকে সেখান থেকে উদ্ধার করেন।

এ ঘটনায় ওইদিন রাতেই ফরিদুল বাদী হয়ে ইউপি চেয়ারম্যান, ইউপি সদস্যসহ তাঁর অনুসারী সাতজনের নামে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দেন।

গতকাল রোববার দুপুরে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুশান্ত কুমার সরকার ও পরিদর্শক (তদন্ত) আরিফ আলী নির্যাতনের শিকার শিক্ষার্থীর বাড়িতে গিয়ে তাঁর সঙ্গে দেখা করে ঘটনার বিস্তারিত শুনেন। এরপর আজ সোমবার পুলিশ ওই শিক্ষার্থীর অভিযোগটি থানায় নথিভুক্ত করা হয়।

এ ব্যাপারে গঙ্গাচড়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুশান্ত কুমার সরকার জানান, গত বৃহস্পতিবার লিখিত অভিযোগ দেওয়ার পরে শুক্রবার ইউপি চেয়ারম্যান সাদা কাগজের একটি মীমাংসাপত্র থানায় জমা দেন। এ কারণে অভিযোগটি নথিভুক্ত করতে বিলম্ব হয়েছে।

দেরিতে হলেও মামলা নথিভুক্ত হওয়াতে স্বস্তি প্রকাশ করেছেন ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী ফরিদুল ইসলাম। তিনি অভিযোগ করে বলেন, টাকার বিনিময়ে টিসিবির কার্ড দেওয়ার বিষয়টি লিখিতভাবে প্রথমে ইউএনওকে জানানো হলেও তিনি কোনো ব্যবস্থা নেয়নি। উল্টো ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করেন।

এখন মামলা নথিভুক্ত হয়েছে জেনে ভালো লাগছে। কিন্তু চেয়ারম্যান ও তাঁর লোকজন যেভাবে হুমকি ধামকি দিচ্ছেন, তাতে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। আমি চেয়ারম্যানসহ অভিযুক্তদের শাস্তির দাবি করছি।

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

এই ক্যাটাগরীর আরও খবর

© ২০২১-২৩ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | সেন্ট্রাল নিউজ বিডি.কম

Theme Designed BY Kh Raad ( Frilix Group )